No Widgets found in the Sidebar
প্রাকৃতিক উপায়ে গ্যাস্ট্রিক নির্মুল করবেন যেভাবে

প্রাকৃতিক উপায়ে গ্যাস্ট্রিকের সমস্যার সমাধান করবেন কিভাবে? 



আপনি জানেন কি! বিশ্বব্যাপি সব থেকে বেশি কোন ধরনের ঔষধ বিক্রি হয়? গ্যাস্টিক। শতকরা ১০০ ভাগ মানুষই গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা ভোগে।

ঘুম কম হওয়া, মানসিক চাপে ভোগা,অনিয়মিত জীবনযাপন, তেল জাতীয় জিনিস খাওয়া, ফাস্ট-ফুড, নানা কারনে আমাদের শরীরে ক্ষতিকর বায়ু তৈরি হয়। যার পরবর্তীতে নানা রোগের কারন হয়।

বর্তমানে মানবদেহের  এই সকল গ্যাস্ট্রিক দূর করার জন্য নানা ধরনের ঔষধ ইতিমধ্যে বের হয়েছে৷

তবে যারা গ্যাস্ট্রিকের ঔষধ না খেয়ে এই সমস্যা থেকে প্রাকৃতিক উপায়ে মুক্তি হতে চান  তাদের জন্য  আছে সলিউশন।

মধু খাওয়ার উপকারিতা। মধু খেলে আপনার শরীরে যা যা ঘটতে পারে

নিচে কয়েকটি সলিউশন দেওয়া হলোঃ

১. প্রতিদিন সকালে উঠে কিছু না খেয়ে খালি পেটে ২ গ্লাস পানি খান।

২. বেশি রাত জাগা যাবে না৷ কারন অতিরিক্ত রাত জাগলে পেটের সমস্যা থেকে শুরু করে গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা হয়।

৩. তৈলাক্ত এবং ফাস্টফুডের খাবার খাওয়া যাবে না।কারন এই সকল খাবারে বেশি গ্যাস্ট্রিক থাকে।

৪. আমরা অনেকেই আছি একটু খাবার খাই একটু পানি খাই।এমন অভ্যাস বাদ দিতে হবে। খাওয়ার শুরুতে এবং খাবার ১০ মিনিট পর পানি খেতে হবে।



৫. বেশি খাওয়া,দ্রুত খাওয়া, অস্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়ার কারনে গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা হয়। তাই এই সকল অভ্যাস বাদ দিতে হবে।

৬. প্রতিদিন রাতে ঘুমানের আগে কিসমিস ভিজিয়ে রাখবেন এবং পরদিন সকালে উঠে কিসমিস ভেজানো পানি এবং কিসমিস খাবেন।

৭. পানি ফিল্টারিং করে বিশুদ্ধ করে খেতে হবে। কারন ক্ষতিকর পানি গ্যাস্ট্রিকসহ অন্যন্য রোগের বাহক।

৮. আপনারা হয়তো অভাক হবেন! ব্যায়াম করার মাধ্যমেও কিন্তু গ্যাস্ট্রিকের সমস্যার সমাধান করা যায়।

তবে সব ব্যায়াম কিন্তু গ্যাস্ট্রিকের সমাধান নয়। গ্যাস্ট্রিকের জন্যও আলাদা ব্যায়াম রয়েছে।

যেমন, ধনুরাসন, মুন্ড কাসন,পবন মুক্তাসন। 

এই সকল ব্যায়ামগুলো গ্র্যাস্ট্রিক রোধে খুবই উপকারী। তাই বাসায় বসে কমপক্ষে ১০ মিনিট করে এই ৩টি ব্যায়াম করুন।

বন্ধুরা এভাবে যদি  ২-৩ মাস এভাবে নিয়ম মতো চলতে পারেন তাহলে  গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা দূর হবে। তবে অতিরিক্ত সমস্যা থাকলে ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী গ্যাস্ট্রিকের ঔষধ নিতে পারেন।

কারন এই ক্ষতিকর বায়ু শরীরকে অকৃয করতে সক্ষম। ঔষধের পাশাপাশি আপনি এই নিয়মগুলো ফলো করতে পারেন।

এই পোষ্টটি এই পর্যন্তই। আমাদের সাইটে স্বাস্থ্য রিলেটেড, টেক রিলেটেড,জব রিলেটেড ইনকাম রিলেটেড সহ সকল বিষয় নিয়ে পোষ্ট করা আছে। যদি সময় থাকে পোষ্ট গুলো চেক করতে পারেন।

ধন্যবাদ।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *